শিরোনাম


Spread the love

তাহিরপুর সংবাদদাতাঃ

সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে পাটলাই নদীতে ডুবে এক পর্যটকের মৃত্যু হয়েছে। নিহত পর্যটকের নাম জাহেদ চৌধুরী (২৫)। সে ঢাকা তিতুমীর কলেজের বিবিএ ৪র্থ বর্ষের শিক্ষার্থী এবং ফেনী জেলার ফেনী থানার দিলরাজপুর গ্রামের মৃত ফজলুল হক চৌধুরীর ছেলে। শুক্রবার বিকাল ৪টার দিকে পাটলাই নদী থেকে কোনাজাল দিয়ে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

পুলিশ ও নিহত পর্যটকের সঙ্গীদের সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার ঢাকা থেকে ১১ বন্ধু মিলে পর্যটনখ্যাত টাঙ্গুয়ার হাওর দেখতে আসে তাহিরপুরে। দুপুরে তাহিরপুর থানা ঘাট থেকে একটি ইঞ্জিন চালিত পর্যটকবাহী ট্রলার ভাড়া করে টাঙ্গুয়া হাওর দেখে সন্ধায় নিলাদ্রী লেকের পাড় ট্যাকেরঘাট কমিউনিটি ক্লিনিকের পাশে রাত্রি যাপন করে তারা। রাত ১২টার দিকে তারা রাতের খাবার খেয়ে সবাই নৌকার মধ্যে ঘুমিয়ে পড়ে। সকালে ঘুম থেকে উঠে তারা ঢাকা যাওয়ার উদ্দেশ্যে নৌকা ছেড়ে তাহিরপুর থানার ঘাটে চলে আসে।

থানা ঘাট থেকে যখন গাড়িতে উঠবে তখন তারা বন্ধু জাহেদ চৌধুরীকে দেখতে না পেয়ে আবার ট্যাকেরঘাট কমিউনিটি ক্লিনিকের ট্রলার ঘাটে এসে তাকে খােজাখুজি করতে থাকে। এক পর্যায়ে তাকে না পেয়ে থানায় বিষয়টি জানালে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে ট্যাকেরঘাট কমিউনিটি ক্লিনিকের ঘাটের তীর থেকে প্রায় ১০০ গজ দূরে ডুবন্ত অবস্থায় তার লাশ মাছ ধরার কোনা জাল দিয়ে উদ্ধার করা হয়।

তাহিরপুর থানার এস আই পাপেল রায় জানান, পাটলাই নদী থেকে ডুবন্ত অবস্থায় জাল দিয়ে এক পর্যটকের লাশ উদ্ধার করে সুরহাল রিপোর্ট তৈরি করা হয়েছে।
তাহিরপুর থানার ওসি মো. আতিকুর রহমান বিষয়টি নিশ্চত করে বলেন, এক পর্যটক নদীতে ডুবে মারা গেছে। তার লাশ উদ্ধার করে সুনামগঞ্জ মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ বিষয়ে অপমৃত্যুর মামলার প্রস্ততি চলছে।

শান্তিবার্তা ডটকম/১৪ আগস্ট ২০২০