শিরোনাম


Spread the love

শান্তিবার্তা ডেস্কঃ

দেড় কোটি গরিব জনগোষ্ঠীকে সহায়তা দেওয়ার জন্য এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংকের (এডিবি) সঙ্গে ৫০ কোটি ডলার (৪,২৫০ কোটি টাকা) ঋণ চুক্তি করেছে সরকার। গত বৃহস্পতিবার এই ঋণের অনুমোদন দেয় ব্যাংকটি।

সোমবার (১১ মে) ঢাকায় এডিবি এবং সরকারের অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের (ইআরডি) মধ্যে এই ঋণচুক্তি সই হয়। ইআরডির সচিব ফাতিমা ইয়াসমিন এবং এডিবির কান্ট্রি ডিরেক্টর মনমোহন প্রকাশ চুক্তিতে সই করেন। এডিবির বাংলাদেশ কার্যালয় থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।


এডিবির এই ঋণ দেড়কোটি কোটি গরীব জনগোষ্ঠীকে সহায়তা করবে, যার মধ্যে ১৫ লাখ শ্রমিক আছে। এই শ্রমিকদের বেশিরভাগই রফতানি খাতে কর্মরত নারী, যাদেরকে বেতন সহায়তা দেওয়া হবে। এছাড়া সরকারি হাসপাতালে ডাক্তার, নার্স ও মেডিক্যাল কর্মীদের বিশেষ সম্মানী দেওয়া হবে।


ঋণের ওই অর্থ দিয়ে ১০০ স্থানীয় সরকার ইউনিটের সব দুঃস্থ বৃদ্ধ ও নারীদের সরকারের সামাজিক সুরক্ষা প্রোগ্রামে অন্তর্ভুক্ত করা হবে। এছাড়া কোভিড-১৯ এর জরুরি প্রভাব যতদিন থাকবে ততদিন অন্তত ২০ লাখ পরিবারের প্রত্যেককে ২৩ ডলার (প্রায় ২০০০ টাকা) ভাতা দেওয়া হবে, প্রায় ১০ লাখ দরিদ্র পরিবারকে প্রতিমাসে ২০ কেজি খাদ্য সহায়তা দেওয়া হবে। ক্ষতিগ্রস্ত ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প এবং অন্যান্য শিল্প কম সুদে ঋণ পাওয়ার জন্য যোগ্য বলে বিবেচিত হবে।


এর আগে এক বিজ্ঞপ্তিতে এডিবি প্রেসিডেন্ট মাসাতসুগু আসাকাওয়া বলেন, ‘বাংলাদেশের সামাজিক ও অর্থনৈতিক ক্ষতি পুষিয়ে দ্রুত নেওয়ার জন্য এডিবির এই সাহায্য সরকারের খাতভিত্তিক সংস্কার সাধনে সহায়তা করবে। দরিদ্র জনগোষ্ঠী ও ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পের ওপর করোনাভাইরাস মহামারির প্রভাব কমানোর জন্য আমরা সরকার ও উন্নয়ন সহযোগীদের সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করবো।
এর আগে গত ৩০ এপ্রিল এডিবি বাংলাদেশের জন্য ১০ কোটি ডলার (প্রায় ৮৩০ কোটি টাকা) ঋণ অনুমোদন করেছে।

করোনাভাইরাস মোকাবিলা ও দেশের অর্থনীতি টিকিয়ে রাখতে এডিবি ছাড়াও বিশ্ব ব্যাংক ও এশীয় অবকাঠামো বিনিয়োগ ব্যাংকের (এআইআইবি) কাছ থেকেও ঋণ নিচ্ছে সরকার।

শান্তিবার্তা ডট কম/১১ মে ২০২০