শিরোনাম
  ইত্যাদি’র এবারে পর্বে মঞ্চ মাতাবেন সিলেটের তসিবা       বিধি-নিষেধ শিথিলতার মেয়াদ আর বাড়ছে না,চলবে ৫ আগস্ট পর্যন্ত       জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সাকিবের ব্যাটে বাংলাদেশের সিরিজ জয়       মাগুরায় সরকারি ভাতাভোগীর টাকা অন্যের মোবাইলে       অ্যাডভোকেট শফিকুল আলমের মৃত্যুতে পরিকল্পনামন্ত্রীর শোক       পল্লীবন্ধু হোসাইন মোহাম্মদ এরশাদের ২য় মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া ও মিলাদ মাহফিল       পাগলা বাজারে মনসুর ফ্যাশনের উদ্বোধন       নরসিংদীতে কাভার্ডভ্যান-লেগুনা সংঘর্ষে নিহত বেড়ে ৬       মেসেঞ্জারে ঢাবি ছাত্রীকে হেনস্তা, তদন্ত কমিটি গঠন       সুনামগঞ্জ জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান করোনা আক্রান্ত    


Spread the love

শান্তিবার্তা ডেস্কঃ

এপ্রিল মাসের শেষ বা মে মাসের শুরুতে বঙ্গোপসাগরে হানা দিতে পারে ঘূর্ণিঝড় উম্পুন। কোথায় আছড়ে পড়বে এটি, সেই সম্পর্কে এখনও বিস্তারিত কিছু জানা যায়নি।

‘উম্পুন’ নামটি থাইল্যান্ডের দেয়া। ঘূর্ণিঝড়ের বর্তমান তালিকায় এটাই শেষ নাম।

এপ্রিলের শেষের দিকে নিম্নচাপ সূষ্টি হতে পারে। সেই নিম্নচাপ ঘূর্ণিঝড়ের রূপ নিলে নাম হবে উম্পুন। আন্দামান ও নিকোবারের দ্বীপগুলোতে এই ঝড়ের প্রভাব বেশি পড়বে বলে মনে করছে ভারতীয় আবহাওয়া দফতর।

এপ্রিল বা মে মাসে হওয়া ঘূর্ণিঝড়ের ভারতীয় মূল ভূখণ্ডের দিকে এগিয়ে আসার প্রবণতা কম। ১৮৯১ সাল থেকে এখনও পর্যন্ত এপ্রিলের কোনও ঘূর্ণিঝড় পশ্চিমবঙ্গের উপকূল অঞ্চলে আঘাত হানেনি। ভারতের পূর্ব উপকূলে আছড়ে পড়েছে মাত্র চারটি ঘূর্ণিঝড়। বাকি ২৪টি বাংলাদেশ বা মিয়ানমারের ক্ষতি করেছে।

ভারতীয় আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, মে মাসের প্রথমেই দক্ষিণ-পূর্ব বঙ্গোপসাগরে একটি ঘূর্ণিঝড় সৃষ্টি হতে পারে। তবে সেটির গতিপথ কোন দিকে হবে তা নিয়ে এখনও কিছু জানাতে পারেনি।

শান্তিবার্তা ডট কম/২৫ এপ্রিল২০২০